বোর্ড থেকে কিছু পাওয়ার আশায় খেলিনি : আকবর | Nobobarta

বোর্ড থেকে কিছু পাওয়ার আশায় খেলিনি : আকবর

‘ক্রিকেট বোর্ডের কাছ থেকে কোনো কিছু পাওয়ার আশা নিয়ে আমরা বিশ্বকাপ খেলতে যাইনি।’ দেশের ফেরার পর এমন মন্তব্যই করেছেন বিশ্বজয়ী বাংলাদেশ যুব দলের অধিনায়ক আকবর আলী। অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে বাংলাদেশের প্রথম লক্ষ্য ছিল ফাইনালে খেলা এবং ট্রফি নিয়ে ফেরা। টুর্নামেন্ট খেলতে দেশ ছাড়ার আগে যে প্রত্যয় ব্যক্ত করেছিলেন আকবর আলীরা সেটি পূরণ করেই দেশে ফিরেছেন তারা।

বুধবার বিকেলে যুব বিশ্বকাপের ট্রফি নিয়ে ফেরে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল। বিশ্বজয়ী যুবাদের বিমানবন্দর ও মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে বিসিবির পক্ষ থেকে দেওয়া হয়েছে সংবর্ধনা। পরে সংবাদ সম্মেলনে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন যুবাদের নিয়ে পরিকল্পনার কথাও জানিয়েছেন। এই দলটাকে নিয়ে দ্রুতই গঠন করা হবে অনূর্ধ্ব-২১ দল। দুই বছর মেয়াদি বিশ্বজয়ী যুবারা পাবেন এক লক্ষ্য টাকা করে। এমন ঘোষণাই দিয়েছেন বিসিবি সভাপতি।

আকবর আলীর কাছে এমন পুরস্কার প্রাপ্তির অনুভূতি জানতে চাইলে বলেছেন, ‘ক্রিকেট বোর্ড থেকে যেটা পারো এ জন্য তাদের ধন্যবাদ দিয়ে রাখছি। কিন্তু সেরকম কিছু প্রত্যাশা নিয়ে আমরা খেলতে যাইনি, যে আমরা বোর্ড থেকে কিছু পাব।’ ‘আমরা যখন বিশ্বকাপ খেলতে যাই তখন বলেছিলাম যে আমাদের প্রথম লক্ষ্য হবে ফাইনালে খেলা। সেই লক্ষ্য নিয়েই আমরা গিয়েছি। লক্ষ্যটা পূরণ করতে পেরেছি বলে আমরা তৃপ্ত।’

তবে বোর্ড থেকে যে পরিকল্পনা গ্রহণ করা হবে তা কাজে লাগাতে মুখিয়ে আছেন আকবর আলীরা। অধিনায়ক জানালেন সেটিই, ‘বোর্ড আমাদের নিয়ে যে পরিকল্পনাগুলো সাজাবে, সেখানে আমরা নিজেদের সর্বোচ্চ দেব। যে ঘাটতিগুলো রয়েছে সেগুলো পূরণ করার চেষ্টা করব। কারণ আপনারা জানেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট সহজ না। সেখানে অবশ্যই বয়সভিত্তিক পর্যায়ের সঙ্গে পার্থক্য রয়েছে। পরবর্তী মাসগুলোতে যতটা সম্ভব দ্রুত আমরা সেই পর্যায়ের কাছাকাছি যাওয়ার চেষ্টা করব। এটাই লক্ষ্য থাকবে।’

Rudra Amin Books

দেশে ফেরার পর শুধু ক্রিকেট বোর্ড নয়, সাধারণ মানুষের ভালোবাসায় সিক্ত হয়েছে আকবর আলীরা। বিমানবন্দর থেকে মিরপুর পর্যন্ত ছিল মানুষের ঢল। হোম অব ক্রিকেটে বোর্ডের পক্ষ থেকেও ছিল বর্ণিল আয়োজন। আকবর যে অভ্যর্থনাকে অবিশ্বাস্য বললেন, ‘আমরা জানতাম কিছু একটা হতে পারে। তবে এতটা বড়ভাবে হবে এটা প্রত্যাশা ছিল না। সত্যিই এটা অবিশ্বাস্য, এক কথায়।’ অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ জয় বাড়াচ্ছে মানুষের স্বপ্নের পরিধি। আকবর মনে করছেন এটা বাংলাদেশের ক্রিকেটের এগিয়ে যাওয়ার পথে নতুন একটা শুরু।

এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, ‘সবকিছুর একটা শুরু দরকার। আমি বলব এটা বাংলাদেশের ক্রিকেটকে সামনে নেওয়ার জন্য বড় একটা ধাপ হিসেবে কাজ করতে পারে। আমি আশা করব এটা আমাদের ক্রিকেটকে এগিয়ে নিতে সাহায্য করবে। সবার জন্য মোটিভেশন হিসেবে কাজ করবে।’ দর্শকদের জন্য আকববের বার্তা, ‘দর্শকদের বলব, সব সময় যে সাপোর্ট করে এসেছেন আমাদের, সেটাই সব সময় চাইব।’

ফেসবুক থেকে মতামত দিন

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.