আজ বৃহস্পতিবার, ১৮ Jul ২০১৯, ০১:১০ পূর্বাহ্ন

আকিব শিকদার-এর ছড়া

আকিব শিকদার-এর ছড়া

আকিব শিকদার-এর দুটি কবিতা
আকিব শিকদার-এর ছড়া

  • 11
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
    11
    Shares

ভালোমানুষি

লাল চশমায় দুনিয়াটা লাল,
কালো চশমায় কালো
চোরের চোখে সকলেই চোর,
সাধু ভাবে সব ভালো।

মানুষে মানুষে দ¦ন্দ¦-
হবেই হবে বন্ধ-

সবাকে তোমার ভালো মনে হবে-
তুমি যদি হও ভালো।

প্রতিফল

অন্যের দোষ ধরতে যেয়ো না ভাই
তবে নিজেকেই দোষে ধরবে
পরের জন্যে কূপ খুড়ো না ভাই
তবে নিজেই কুয়ায় পড়বে।

মৌমাছিরা তোমায় করবে ধাওয়া
যদি তাদের চাকে মারো চাটি
যে জন জাতির ক্ষতি করে ছুটে
লোক হিসেবে সে জন তো নয় খাঁটি।

কুকুর তোমায় কখন করে তাড়া
যখন তুমি তার পেছনে ছুটো
শান্ত ষাঁড়টি মারবে তোমায় গুতো
যদি বা তার পিঠে চড়ে উঠো।

সাপটি তোমায় ছোবল দেবে ঠিকই
যখন তোমার পা তার লেজে পড়বে
অন্যের দোষ ধরতে যেয়ো না ভাই
তবে নিজেকেই দোষে ধরবে।

মানুষ জন্তু

খাঁচার ভেতর কাঠবিড়ালী নাচছে দারুন সুখে
তার জন্য বিন্তি বেগম কাটছে আপেল কলা
সেই আপেলের এক টুকরো নেয় যদি সে মুখে
বাড়ির কর্তা ক্ষেপবে ভীষণ, দেবেই কানে মলা।

গেটের কাছে কুকুর একটা, গলায় শিকল ঝোলে-
তার জন্য তৈরি হচ্ছে মাংস পোলাও বাটি।
সেই পোলাউয়ের একটু যদি বিন্তি মুখে তোলে
কর্তার বউ বেজায় রেগে মারবে পিঠে চাটি।

আপেল খাবে কাঠবিড়ালী, মাংস খাবে কুকুর
কাজের মেয়ে ভাগ বসালেই পরবে ঘাড়ে মুগুর
পোষা প্রাণির এতো কদর, মানুষকে নয় কিন্তু
সন্দেহ হয় মালিকগুলো মানুষ নাকি জন্তু!!

বলতে পারিস?

বলতে পারিস মাছেরা সব কোথায় থাকে?
ফ্রিজের ভেতর স্যার-
একটা ছেলে দাঁড়িয়ে উঠে জবাব রাখে।

বলতে পারিস শাপলা কোথায় ফোটে?
জী স্যার, ক্যালেন্ডারের পাতায়-
একটা মেয়ে বলতে বলতে দাঁড়িয়ে ওঠে।

বলতে পারিস কোথায় জমে মধু?
টেকু মাথার ছেলেটা এবার হাত উঁচিয়ে ধরে
আলমারিতে লুকিয়ে রাখা বৈয়মটাতে শুধু।

বলতে পারিস ফড়িং কোথায় নাচে?
লাস্ট বেঞ্চের মেয়েটা উঠে বলে-
বিজ্ঞাপনের বেলায় মোবাইল ফোনের কাছে।

মাথা কুটেন স্যার, স্যারের চোখে ক্রোধ-
দুচোখ মেলে প্রকৃতিকে দেখতে পায় না যারা
কেমনে তাদের হবে প্রকৃতিপ্রেম বোধ??

লেখক পরিচিতি: আকিব শিকদার। জন্ম কিশোরগঞ্জ জেলার হোসেনপুর থানাধীন তারাপাশা গ্রামে, ০২ ডিসেম্বর ১৯৮৯ সালে। প্রফেসর আলহাজ মোঃ ইয়াকুব আলী শিকদার ও মোছাঃ নূরুন্নাহার বেগম এর জ্যেষ্ঠ সন্তান। স্নাতক পড়েছেন শান্ত-মরিয়ম ইউনিভার্সিটি থেকে ফ্যাশন ডিজাইন বিষয়ে। পাশাপাশি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতিতে স্নাতক ও স্নাতোকোত্তর। খন্ডকালীন শিক্ষকতা দিয়ে কর্মজীবন শুরু; পরবর্র্তীতে ফ্যাশন ডিজাইনিংকেই পেশা হিসাবে বেছে নিয়েছেন।

কবির বিধ্বস্ত কঙ্কাল (২০১৪), দেশদ্রোহীর অগ্নিদগ্ধ মুখ (২০১৫), কৃষ্ণপক্ষে যে দেয় উষ্ণ চুম্বন (২০১৬), জ্বালাই মশাল মানবমনে (২০১৮) তার উল্লেখযোগ্য কাব্যগ্রন্থ। সাহিত্য চর্চায় উৎসাহ স্বরুপ পেয়েছেন হোসেনপুর সাহিত্য সংসদ প্রদত্ত “উদ্দীপনা সাহিত্য পদক”, “সমধারা সাহিত্য সম্মাননা”, “মেঠোপথ উদ্দীপনা পদক”। লেখালেখির পাশাপাশি সঙ্গীত ও চিত্রাংকন তার নেশা।

লাইক দিন এবং শেয়ার করুন


Leave a Reply

Nobobarta.com
Design & Developed BY Nobobarta.com