আজ শনিবার, ২৫ মে ২০১৯, ০৪:১৩ পূর্বাহ্ন

ঢাকা-আরিচা রেলপথ চাই মানিকগঞ্জ বাসী

ঢাকা-আরিচা রেলপথ চাই মানিকগঞ্জ বাসী

  • 3
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
    3
    Shares

মনিকগঞ্জ: ১৮৬২ সালে উপমহাদেশে প্রথম রেললাইন বসানো হয়। এই লাইন পরে গোয়ালন্দ পর্যন্ত নেয়া হয়। বিংশ শতাব্দীর শুরুতে ঢাকা থেকে কলকাতায় যাতায়াতের সুবিধার্থে গোয়ালন্দকে সংযুক্ত করে রেললাইন বসানোর উদ্যোগ নেয়া হয়। তখন ভূমি জরিপ করে ৩ টি সম্ভাব্য পথ প্রস্তাব করা হয়।

  • আরিচা থেকে টাঙ্গাইলের মির্জাপুর, গাজীপুরের শালবন হয়ে ঢাকা পর্যন্ত
  • আরিচা থেকে ধামরাই, সাভার ও ধল্লা নদী অতিক্রম করে ঢাকা পর্যন্ত
  • আরিচা থেকে সিংগাইর, কেরাণীগঞ্জ, দোহার হয়ে ঢাকা পর্যন্ত

মানিকগঞ্জ বাসী : প্রথম পথটির সমস্যা হল এখানকার ভূমি বেশ উঁচুনিচু এবং বনাঞ্চল হওয়াতে রেলপথ বসানো বেশ ব্যায়বহুল।তৃতীয় পথটির সমস্যা হল এখানে নদীখাল অত্যান্ত বেশি। তাই প্রচুর ব্রীজ বসাতে হবে। কিন্তু ২ নং পথটিই সবদিক থেকে আদর্শ। তাই সর্বোসম্মতি ক্রমে ২ নং পথটিই গৃহিত হয়। এটিই আজকের ঢাকা-আরিচা মহাসড়ক।এরপর রেলপথ স্থাপনের জন্য জমি গ্রহণ করে মাটি ফেলে উঁচু করা হয়। কিন্তু তখন কিছু অনাকাঙ্খিত কারণে কাজ বন্ধ হয়ে যায়। প্রথমত, তখন নারায়ণগঞ্জ থেকে গোয়ালন্দ পর্যন্ত নৌপথটি ছিল বেশ জমজমাট। পণ্য ও যাত্রী পরিবহনে এই পথের বিকল্প ছিল না। কিন্তু এটি খুব ব্যায়বহুল ও সময়সাপেক্ষ ছিল। তাই রেলপথ হলে নৌমালিকরা ক্ষতির সম্মুক্ষীণ হত। এজন্য তারা ষড়যন্ত্র শুরু করে এবং কর্তৃপক্ষকে চাপ দিকে থাকে। তাছাড়া তখন গভর্নরের বদলি হয় এবং ব্যাপকহারে স্বদেশী আন্দোলন চলতে থাকে। তাই রেলপথ বসানো আর সম্ভব হয়নি। এরবদলে পিচঢালা মহাসড়ক স্থাপন হয়।

মানিকগঞ্জ বাসী : কতিপয় মানিকগঞ্জবাসী সহ দক্ষিণবঞের যাত্রীরা এতবড় সুবিধা হতে বঞ্চিত। এই রেলপথটাই অবহেলিত মানিকগঞ্জের উন্নয়নের মাইলফলক হয়ে থাকত।তাই সময় এসেছে আবার আন্দোলনে নামার। এই আন্দোলন আমাদের ভাগ্যের সাথে জড়িত। নেমে পড়ুন কঠোর আন্দোলনে। দাবীর স্বপক্ষে জোড়ালো জনমত গড়ে তুলুন। দাবী একটাই, ঢাকা-আরিচা রেলপথ চাই।

লাইক দিন এবং শেয়ার করুন




Leave a Reply

কে এই যুবক? টিস্যু দিয়ে বঙ্গবন্ধুর বিকৃত ছবি পরিস্কার করছে



Nobobarta on Twitter

© 2018 Nobobarta । Privacy PolicyAbout usContact DMCA.com Protection Status
Design & Developed BY Nobobarta.com