জনশূন্য বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস, থেমে নেই সচেতনার বীজ বপন : করোনা | Nobobarta

আজ বুধবার, ০১ এপ্রিল ২০২০, ১২:৩৫ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
প্রথম রাতে ৩৭শ পরিবার পেলো খাদ্যসামগ্রী : সিসিক বস্তিতে ভরা দুপুরে কন্ঠশিল্পী নয়ন দয়া ও হাজী আরমান ৬৫ হাজার পরিবারকে খাদ্য সহায়তা দেবে সিসিক ভালুকায় খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করলেন সাদিকুর রহমান ঝালকাঠি করোনা প্রতিরোধে রক্ত কণিকা ফাউন্ডেশন জীবাণুনাশক স্প্রে করোনাঃ দুস্থদের খাদ্য দিলো কুড়িগ্রাম জেলা ছাত্রলীগ সিরাজদিখানে দেড় হাজার পরিবারের মধ্যে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ রাজাপুরে সাইদুর রহমান এডুকেশন ওয়েল ফেয়ার ট্রাষ্ট’র হতদারিদ্রদের মাঝে ত্রান বিতরণ রাজাপুরে পল্লী বিদ্যুত সমিতির গরীব মানুষদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ রাজাপুরে বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে নিজস্ব অর্থায়নে খাদ্য সামগ্রী বিতরন করলেন ইউপি সদস্য
জনশূন্য বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস, থেমে নেই সচেতনার বীজ বপন : করোনা

জনশূন্য বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস, থেমে নেই সচেতনার বীজ বপন : করোনা

Rudra Amin Books

মনিরা নুসরাত ফারহা : সম্পূর্ণ দেশ যখন সঙ্কটময় মুহূর্তে তখন দেশের মানুষকে এই ভয়াবহ করোনার হাত থেকে রক্ষা করতে থেমে নেই দেশপ্রেমীরা। বাংলাদেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান যখন করোনা আতঙ্কে বন্ধ ঠিক সেই সময়ে সকল প্রতিবন্ধকতার উর্ধ্বে গিয়ে কিছু তরুণ তরুণী সচেতনতা ছড়াচ্ছেন। বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস যখন করোনার আতঙ্কে জনশূন্য, তখন গুটিকয়েক তরুণ তরুণী বিভিন্ন পরিবহন চালক যেমন ভ্যান, রিক্সাচালক, সিএনজি চালকের মাঝে বিনামূল্যে মাস্ক বিতরন করে চলেছে।

শুধু নিজেদের সচেতন থাকলেই হবেনা, চারপাশের মানুষ গুলোর মাঝেও সচেতনতার বীজ বপন করতে হবে জানাতে হবে করোনা প্রতিরোধে করণীয় কি? এই লক্ষ্যে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের জনসংখ্যা বিজ্ঞান বিভাগের সকল শিক্ষার্থীর সম্মিলিত প্রয়াসে আজ বিকাল ৩ঃ৩০ মিনিটে বিনামূল্যে বিভিন্ন পরিবহন চালকদের মাঝে মাস্ক বিতরন করা হয় এবং পরিবহনে থাকা যাত্রীদের কেও করোনা প্রতিরোধে করণীয় সম্পর্কে জানিয়ে দেয়া হয়।

মাস্ক বিতরন ও সচেতনতা তৈরি সম্পর্কে জনসংখ্যা বিজ্ঞান বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী রেজুয়ান রহমান রমি বলেন,” বিশেষ করে পরিবহন চালকদের সারাদিনে জনসমাগমে কাটাতে হয়। তারা ইচ্ছা করলেও ভীড় এড়িয়ে জনসমাগমের বাইরে অবস্থান করতে পারেন না। তারা আক্রান্ত হলে সচেতনতার অভাবে তাদের পরিবারও এই করোনার হাত থেকে রেহাই পাবেনা। করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার লক্ষন দেখা দিলে বিত্তবান লোকেরা সহজেই একটা হসপিটালে ভর্তি হতে পারবে কিন্তু ভ্যান বা রিক্সাচালকের পক্ষে সেটা অত্যন্ত কষ্টকর। তাই এদের যতটা সম্ভব করোনা প্রতিরোধে করণীয় সম্পর্কে জানাতে হবে এজন্যই মূলত পরিবহন চালকদের মাঝে মাস্ক বিতরন করা এবং করোনা সম্পর্কে তাদের জানানো।”

দেশ আমার, দেশের এই সঙ্কটময় মুহূর্তে দেশের মানুষের পাশে দাড়ানোর দায়িত্বও আমার। তাই আসুন নিজে সচেতন হই, আশেপাশের মানুষ গুলোকে সচেতন করি।


Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.






Nobobarta © 2020 । About Contact Privacy-PolicyAdsFamily
Developed By Nobobarta