আজ বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০১৯, ০৪:৪৯ অপরাহ্ন

ঘিওর উপজেলা নির্বাচনে চায়ের কাপে ঝড় উঠেছে

ঘিওর উপজেলা নির্বাচনে চায়ের কাপে ঝড় উঠেছে

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  

ঘিওর প্রতিনিধি:আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনকে সামনে রেখে সরব হয়ে উঠেছে মানিকগঞ্জ জেলার ঘিওর উপজেলার রাজনৈতিক অঙ্গন। গ্রাম থেকে শহরে সর্বত্রই চলছে আলোচনা, উঠছে চায়ের কাপে ঝড়।

কে কোন দল থেকে পাচ্ছেন মনোনয়ন। বিশেষ করে বর্তমান ক্ষমতাসীন দল বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ থেকে কে হচ্ছেন দলীয় প্রার্থী এ নিয়ে চায়ের দোকান থেকে শুরু করে সর্বত্র চলছে নানা জল্পনা কল্পনা। সেই সাথে চলছে রাজনৈতিক মহলে নানান হিসাব নিকাশ।

বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশনের ভাষ্য অনুযায়ী আগামী ফেব্রুয়ারী মাসে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষনা করার কথা। এ নিয়ে নবীন ও প্রবীণ সম্ভাব্য প্রার্থীরা শুরু করেছে নিজেদের প্রচার প্রচারণা। এ সকল সম্ভাব্য প্রার্থীদের সমর্থকেরা ফেসবুক সহ বিভিন্ন সামাজিক মাধ্যমে ব্যাপক প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছে। এছাড়া উপজেলার বিভিন্ন হাট, বাজার ও গুরুত্বপূর্ণ স্থান পোষ্টার, ব্যানার ও ফেস্টুন দিয়ে ছেয়ে গেছে।

এই নির্বাচনকে সামনে রেখে আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জাসদসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের প্রার্থীরা চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান পদে নির্বাচনের মাঠে ব্যাপক প্রচার-প্রচারণা শুরু করেছে। এবার প্রথমবারের মতো দলীয় মনোনয়ন দেয়ার ঘোষণার পর থেকে ভোটারদের দ্বারে না গিয়ে অনেকে দলীয় মনোনয়নের আশায় হাই কমান্ডে জোর লবিং চালাচ্ছে। এখন দলীয় মনোনয়ন লাভই যেন তাদের প্রথম চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

বিভিন্ন গণমাধ্যম কর্মী ও দলীয় নেতাদের সঙ্গে সম্ভাব্য প্রার্থীরা যোগাযোগ রক্ষা করে ৭টি ইউনিয়নের ভোটারদের কাছে তাঁদের প্রার্থী হওয়ার খবর ছড়িয়ে দিচ্ছেন। প্রতিদিন দল বেধে এলাকার বিভিন্ন স্থানে মোটরসাইকেল শোডাউন ও উঠান বৈঠক করে যাচ্ছেন। বিভিন্ন উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি দিয়েও ভোট প্রার্থনা অব্যাহত রেখেছেন। এ উপজেলাতে প্রধান দুটি রাজনৈতিক দলের প্রায় সমান ভোটার রয়েছে। তবে আওয়ামী লীগ থেকে বরাবরেই একাধিক প্রার্থী উপজেলা নির্বাচনে মনোনয়ন প্রাপ্তির জন্য লড়াই করেন। তবে এবারও ব্যতিক্রম হবেনা, এমনটা মনে করছেন স্থানীয় লোকজন। আগামী উপজেলা পরিষদ নির্বাচন জাতীয় প্রতীকে হবার কথা রয়েছে। তবে সর্বশেষ কার কপালে জাতীয় প্রতীকের মনোনয়ন হবে তা এখন টক অব দ্য টাউন।

এবার নতুন এবং পুরাতন মিলে সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে ১১ জনের নাম ঘুরে ফিরে আলোচিত হচ্ছে। সম্ভাব্য প্রার্থীদের মধ্যে উপজেলা চেয়ারম্যান হিসেবে আলোচনায় রয়েছেন জেলা পরিষদের সদস্য ও ঘিওর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি আব্দুল খালেক বিএসসি, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা আফজাল হোসেন খান জকি, জেলা আওয়ামী লীগ সহ-সভাপতি এ্যাড. শচীন্দ্রনাথ মিত্র, জেলা আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক এবং সাবেক ঘিওর ইউপি চেয়ারম্যান মো. হামিদুর রহমান আলাই, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যক্ষ মো. হাবিবুর রহমান হাবিব, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক ছাত্রলীগের সভাপতি আব্দুল আলীম মিয়া মিন্টু, কৃষকলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি ও সাবেক আওয়ামী যুবলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির নেতা রেজাউল করিম উজ্জল (দরজী), জেলা বঙ্গবন্ধু আইনজীবি পরিষদের সহ-সভাপতি ও ঘিওর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এ্যাড.মো. রওশন আলম (এপিপি), ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্রনেতা ও ঢাকা মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের দফতর সম্পাদক মো. রবিউল আলম প্রধান, বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান মো. ফজর আলী (বিএনপি), যুবদল নেতা এ্যাড. আব্দুল আলীম খান মনোয়ার (বিএনপি)।

উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে মনোনয়ন প্রত্যাশী উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ- সভাপতি মো. আতোয়ার রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. ইসতিয়াক আহম্মেদ, আওয়ামী যুবলীগের আহ্বায়ক বাবুল বেপারী, ইউপি সদস্য মো. মোতালেব মিয়া, জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক মো. মোজ্জাম্মেল হক বাবু। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে আলোচনায় রয়েছেন বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান জোসনা শিকদার, সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান কবি ও সাহিত্যিক বেগম শামসুন নাহার।

উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতারা সাংবাদিকদের জানান,উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে অংশ নিতে দলের অনেকেই আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। তবে দলীয় সিদ্ধান্ত মোতাবেক প্রার্থীরা মনোনয়ন পাবেন। কোন অবস্থায়ই বিদ্রোহী প্রার্থীদের মেনে নেয়া হবে না।

লাইক দিন এবং শেয়ার করুন




Leave a Reply

জনসম্মুখে পুরুষ নির্যাতন, ভিডিও ভাইরাল

Nobobarta on Twitter

© 2018 Nobobarta । Privacy PolicyAbout usContact DMCA.com Protection Status
Design & Developed BY Nobobarta.com