আগৈলঝাড়ায় পূজা দেখতে গিয়ে কিশোর গ্যাং এর হাতে যুবক ছুড়িকাহত | Nobobarta

আজ শনিবার, ১৩ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৮শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, বিকাল ৪:৪০মি:

সংবাদ শিরোনাম:
আগৈলঝাড়ায় পূজা দেখতে গিয়ে কিশোর গ্যাং এর হাতে যুবক ছুড়িকাহত

আগৈলঝাড়ায় পূজা দেখতে গিয়ে কিশোর গ্যাং এর হাতে যুবক ছুড়িকাহত

অপূর্ব লাল সরকার, আগৈলঝাড়া (বরিশাল) : বরিশালের আগৈলঝাড়ায় হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের প্রধান ধর্মীয় উৎসব দুর্গাপূজা দেখতে গিয়ে কথিত কিশোর গ্যাং এর হামলায় ছুড়িকাহত হয়েছে এক যুবক। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার বাকাল ইউনিয়নের কোদালধোয়া গ্রামে। হামলার ঘটনা জানতে পেরে এলাকাবাসী তাদের ধাওয়া করে বড়মাগড়া এলাকা থেকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।

সরেজমিন, এলাকাবাসী ও থানাসূত্রে জানা গেছে, স্থানীয় মন্মথ বৈষ্ণবের ছেলে নয়ন বৈষ্ণব কোদালধোয়া বাজারে নিজ দোকান থেকে শনিবার রাতে বাড়ি ফেরার পথে পার্শ্ববর্তী এলাকার মোটরসাইকেল আরোহী কয়েকজন কিশোর পূজা দেখতে যাওয়ার পথে নয়নকে একা পেয়ে তার উপর আক্রমণ করে সাথে থাকা টাকা ও মোবাইল ছিনিয়ে নেয়। এসময় নয়ন বাঁধা দিলে তারা নয়নের গলায় ছুড়ি দিয়ে পোঁচ দেয়। উপায়ন্ত না দেখে নয়ন ডাকচিৎকার দিলে স্থানীয় লেঅকজন এগিয়ে এলে দুর্বৃত্তরা দক্ষিণদিকে পালিয়ে যায়। পরে লোকজন নয়নকে হাসপাতালে পাঠিয়ে থানায় এবং বড়মাগড়া এলাকায় ফোন করে জানালে সেখানে বেড়িকেট দিলে ৬জনকে আটক করে থানায় সোপর্দ করা হয়।

অটককৃত কথিত কিশোর গ্যাং এর ৬ দুর্বৃত্ত হলো- বাটরা গ্রামের সুকুমার বালার ছেলে সৈকত বালা (১৯), জীবন হালদারের ছেলে পল্লব হালদার (২১), চৈতন্য হালদারের ছেলে চিন্ময় হালদার (১৯), স্বপন বৈদ্যের ছেলে সোহাগ বৈদ্য (১৯), দুলাল বৈদ্যের ছেলে রাতুল বৈদ্য (১৮) এবং পার্শ্ববর্তী রামশীল গ্রামের সুধাংশু হালদারের ছেলে চিত্তরঞ্জন হালদার (১৯)। এ বিষয়ে থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ওসি (তদন্ত) মাজহারুল ইসলাম সাঙবাদিকদের জানান, উক্ত ঘটনায় দায়েরকৃত মামলা নং- ১১ (তারিখ- ২৫-১০-২০২০ ইং)। গতকাল রোববার তাদের বরিশাল আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :


Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

সংরক্ষণাগার

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০  
Nobobarta © 2020 । About Contact Privacy-PolicyAdsFamily
Developed By Nobobarta