ভ্রমণবিলাসী -স্বর্না | Nobobarta

ভ্রমণবিলাসী -স্বর্না

পড়ার সময়:1 মিনিট, 22 সেকেন্ড

গা হিম করা বাতাসের সাথে সমুদ্রের গর্জন শুনেছো কখনো?
আর উপরের দিকটায় আকাশের ভয়ানক নীল?
ও! সাথে কিন্তু পূর্ণিমাও ছিলো সেদিন।
এ নিষ্ঠুর পৃথিবী আর মানুষ যখন তোমায় কষ্ট দিবে,
তুমি শুধু চারদেয়াল থেকে নিজেকে বের করে প্রকৃতিতে বিলিয়ে দিও।
আর নিজেকে উজাড় করে,স্বাদ নিও প্রকৃতির!
তারপর? তুমি খুঁজে পাবে নিজেকে।
আচ্ছা মানুষ কেন আত্মহত্যা করে বলোতো?
কেন এতো সহজে সে নিজ সত্ত্বা বিসর্জন দিয়ে দেয়?
কারণ সে নিজেকে খোজেঁ না।
আমিও করতাম!
কিন্ত ছুঁটতে,ছুঁটতে একদিন আমি
ঠিক খুঁজে পেয়েছি নিজেকে;
পেয়েছি আমার আমিত্বকে।
উপলব্ধি করেছি নিজ সত্ত্বাকে।
আর তাই!আজ বেঁচে আছি।
জীবনের সব যখন ফুরিয়ে যাবে ভ্রমন করে,
চার দেয়ালের মাঝে যখন নিজেকে বন্দী মনে হবে,ভ্রমন করো।
আমার আমি কে যখন আর ভাল লাগবে না,ভ্রমন করো,শুধুই ভ্রমন করো।
তখন দেখবে ‘নিজ সত্ত্বাকে’ছাড়তে
পারবে না…….

ফেসবুক থেকে মতামত দিন

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

53 Shares
Share53
Tweet
Share
Pin