ডায়াবেটিসের ঝুঁকি বাড়ায় সাদা চালের ভাত | Nobobarta

ডায়াবেটিসের ঝুঁকি বাড়ায় সাদা চালের ভাত

পড়ার সময়:2 মিনিট, 58 সেকেন্ড

বাঙালির প্রধান খাদ্য সাদা চালের ভাত। সঙ্গে দৈনন্দিন বিভিন্ন রেসিপিতেও থাকে সাদা চালের ব্যবহার। পিঠা থেকে শুরু করে বিরিয়ানি কিংবা ক্ষীর-পায়েসেও সাদা চাল। অথচ আপনি জেনে শঙ্কিত হবেন যে- সাদা চালের ভাত খাওয়া ডায়াবেটিসের জন্য চরম ঝুঁকিপূর্ণ!

হাভার্ড স্কুল অব পাবলিক হেলথ ও ব্রিটিশ মেডিকেল জার্নালে প্রকাশিত আন্তর্জাতিক দু’টি গবেষণা দল এই তথ্য প্রকাশ করেছে। প্রতিবেদনে অনুসারে, গবেষকরা টানা ১০ বছর ধরে ২১টি দেশের ১ লাখ ৩২ হাজার ৩৭৩ জন মানুষের উপর গবেষণা পরিচালনা করেছেন। গবেষণায় বিভিন্ন শ্রেণি-পেশা ও বয়সের মানুষকে ভিন্ন ক্যাটাগরিতে রেখে পর্যবেক্ষণ করা হয়েছে। তবে অংশগ্রহণকারীদের বয়স ৩৫ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে ছিল।

ওই গবেষণা প্রতিবেদনে দক্ষিণ এশিয়ায় সবচেয়ে বেশি ডায়াবেটিস ঝুঁকির কথা উল্লেখ করা হয়। কারণ এ অঞ্চলের মানুষ বেশিরভাগই সাদা চালের ভাত খেতে অভ্যস্ত। দীর্ঘ সময় পর্যবেক্ষণে গবেষকরা দেখেছেন, ডায়াবেটিসের সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ অঞ্চল দক্ষিণ এশিয়া। ভৌগলিকভাবে অন্য এলাকার মানুষের থেকে এখানকার কয়েকগুণ বেশি মানুষ ডায়াবেটিসে ভুগছেন।

গবেষকরা বলছেন, যেসব মানুষ প্রতিদিন প্রায় ২৫০ গ্রাম রান্না করা সাদা চালের ভাত খেতে অভ্যস্ত, তাদের ডায়াবেটিস ঝুঁকি অন্যদের চেয়ে ১১ শতাংশ বেশি। ৩০ বছরের পার হওয়ার পরই তারা দ্রুত ডায়াবেটিসের ঝুঁকিতে পড়ে। ব্রিটিশ মেডিকেল জার্নালে প্রকাশিত আরেক গবেষণা প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, যারা সবচেয়ে বেশি সাদা চালের ভাত খেতে অভ্যস্থ, তাদের ডায়াবেটিসের ঝুঁকি ২৭ শতাংশ বেড়ে যায়।

Rudra Amin Books

উভয় গবেষণার প্রাপ্ত ফলাফলগুলো বিবেচনা করে এটা স্পষ্ট হয় যে, সাদা চালের ভাত ডায়াবেটিস ঝুঁকিতে ফেলতে ভয়ংকর একটি উপাদান হিসেবে কাজ করে। ফলে অভ্যস্থতার কারণে সাদা চালের ভাত ডায়েটের অংশ করলেও খাওয়ার ক্ষেত্রে হতে হবে অধিক সংযমী।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

0 Shares
Share
Tweet
Share
Pin