যুবলীগের চেয়ারম্যান হচ্ছেন শেখ ফজলে শামস পরশ! – Nobobarta

আজ শনিবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯, ১২:৩৫ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
১০ ডিসেম্বর উপাচার্যের দুর্নীতির ক্ষতিয়ান প্রকাশ করবে আন্দোলনকারীরা মার্শাল আর্ট ‘বিচ্ছু’ নিয়ে আসছেন সাঞ্জু জন আজ উদয় সমাজ কল্যান সংস্থা সিলেটের ১২তম ওয়াজ মাহফিল দলীয় কার্যালয় সম্প্রসারণের লক্ষে আগৈলঝাড়া রিপোর্টার্স ইউনিটির প্লট উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দের কাছে হস্তান্তর যবিপ্রবিতে ইয়ুথ এন্ডিং হাঙ্গার বাংলাদেশের নতুন কমিটি গঠন আটোয়ারীতে পরিবার কল্যাণ সেবা ও প্রচার সপ্তাহ উপলক্ষে এ্যাডভোকেসি সভা অনুষ্ঠিত জবি রোভার দলের হেঁটে ১৫০ কিলোমিটার পরিভ্রমণের উদ্বোধন মারুফ-তানহার ‘দখল’ লক্ষ্মীপুরে রামগতি পৌরসভায় ৮ কোটি টাকার টেন্ডার জালিয়াতি চেষ্টার অভিযোগ নলছিটিতে যুবকের গলাকাটা লাশ উদ্ধার
যুবলীগের চেয়ারম্যান হচ্ছেন শেখ ফজলে শামস পরশ!

যুবলীগের চেয়ারম্যান হচ্ছেন শেখ ফজলে শামস পরশ!

আগামী শনিবার ২৩ নভেম্বর যুবলীগের ৭ম কংগ্রেস অনুষ্ঠিত হবে। এদিন নির্বাচিত হবেন ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের এই যুব সংগঠনের কাণ্ডারি। তাই স্বাভাবিকভাবেই আলোচনায় আসছে সম্ভাব্য নেতাদের নাম; যারা পেতে পারেন দায়িত্ব। চেয়ারম্যান পদে সবচেয়ে বেশি আলোচনায় আসছে সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা শেখ ফজলুল হক মনির দুই ছেলে শেখ ফজলে নূর তাপস ও শেখ ফজলে শামস পরশের নাম। তবে বেশিরভাগ সূত্র মনে করছেন, শেখ ফজলে শামস পরশই হচ্ছেন যুবলীগের পরবর্তী চেয়ারম্যান।

নানাভাবে বিতর্কিত যুবলীগের নেতৃত্বে আমূল পরিবর্তন আসছে এটা অনেকটাই নিশ্চিত। চেয়ারম্যান ও সাধারণ সম্পাদকসহ অন্য পদগুলোতেও বিতর্কিতদের স্থান হবে না। পরিচ্ছন্ন ভাবমূর্তির ও ভবিষতে স্বচ্ছতা ধরে রাখতে সক্ষম হবেন এমন কাউকেই খোঁজা হচ্ছে যুবলীগের নেতৃত্ব তুলে দেওয়ার জন্যে।

যুবলীগের সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির সদস্যসচিব ও যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশীদ বলেন, ‘এবার পরিচ্ছন্ন ভাবমূর্তির নেতারা গুরুত্বপূর্ণ পদ পাবেন বলে আমি মনে করি।’

জানা গেছে, যুবলীগের প্রতিষ্ঠাতা শেখ ফজলুল হক মনির দুই সন্তান শেখ ফজলে নূর তাপস ও শেখ ফজলে শামস পরশ। সংসদ সদস্য তাপস বর্তমানে বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের সদস্যসচিব। ফজলে শামস পরশ এখনো দলীয় রাজনীতিতে যুক্ত না হলেও পরিচ্ছন্ন ভাবমূর্তির ব্যক্তি হিসেবে আওয়ামী লীগের নীতিনির্ধারণী পর্যায়ের আস্থাভাজন।

শেখ ফজলুল হক মনি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাগ্নে এবং বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের প্রতিষ্ঠাতা। বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধে অন্যতম প্রধান গেরিলা বাহিনী মুজিব বাহিনী তার নির্দেশে ও প্রত্যক্ষ তত্ত্বাবধানে গঠিত এবং পরিচালিত হয়।


Leave a Reply