বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর কাউন্টডাউনের দিন যবিপ্রবিতে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা - Nobobarta

আজ মঙ্গলবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৯, ১২:২৫ অপরাহ্ন

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর কাউন্টডাউনের দিন যবিপ্রবিতে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর কাউন্টডাউনের দিন যবিপ্রবিতে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকীর কাউন্টডাউনের দিন আগামী ৮ ডিসেম্বর যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (যবিপ্রবি) শুরু হচ্ছে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মধ্যে যে কেউ এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করতে পারবেন।

কৃষ্ণ বালা, যবিপ্রবি প্রতিনিধিঃ
আজ শনিবার দুপুরে যবিপ্রবির প্রশাসনিক ভবনের সম্মেলন কক্ষে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা আয়োজক কমিটির সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন যবিপ্রবির উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোঃ আনোয়ার হোসেন। তিনি বলেন, অত্যন্ত আড়ম্বরপূর্ণভাবে যথাযথ মর্যাদায় যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী পালন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এরই অংশ হিসেবে আগামী ৮ ডিসেম্বর বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর কাউন্টডাউনের দিন বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথমবারের মতো বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হবে। আশা করি, সকলের অংশগ্রহণে ক্রীড়া প্রতিযোগিতাটি অত্যন্ত সফলভাবে আমরা সমাপ্ত করতে পারব।

বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য এমপি।

যবিপ্রবির শহীদ মসিয়ূর রহমান হল এবং শেখ হাসিনা ছাত্রী হলের সহযোগিতায় বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার আয়োজন করছে বিশ্ববিদ্যালয়ের শরীর চর্চা শিক্ষা দপ্তর। শরীর চর্চা শিক্ষা দপ্তর জানিয়েছে, এন্ট্রি ফরম পূরণের মাধ্যমে ট্রাক ইভেন্টে ১০০ মিটার স্প্রিন্ট থেকে ৫০০০ মিটার স্প্রিন্ট পর্যন্ত দৌঁড় এবং ফিল্ড ইভেন্টে দীর্ঘ লাফ, উচ্চ লাফ, গোলক নিক্ষেপ, চাকতি নিক্ষেপ, বর্ষা নিক্ষেপ, পয়জন বল, মিউজিক্যাল চেয়ারসহ নানা ইভেন্ট অনুষ্ঠিত হবে। একজন ছাত্র-ছাত্রী সর্বোচ্চ দুটি (একটি ট্রাক ও একটি ফিল্ড) ইভেন্টে অংশগ্রহণ করতে পারবেন। তবে পিইএসএস বিভাগের একজন ছাত্র/ছাত্রী একটি ইভেন্টে অংশগ্রহণ করতে পারবেন।

বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা কমিটির সভায় উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিন্স কমিটির আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. মোঃ আনিছুর রহমান, ডিন ড. এ এস এম মুজাহিদুল হক, অধ্যাপক ড. মৃত্যুঞ্জয় বিশ্বাস, ড. কিশোর মজুমদার, ড. আব্দুল্লাহ আল মামুন, ড. জাফিরুল ইসলাম, অধ্যাপক ড. শেখ মিজানুর রহমান, রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী মোঃ আহসান হাবীব, শরীর চর্চা শিক্ষা দপ্তরের পরিচালক ড. মোঃ নাসিম রেজা, কর্মকর্তা সমিতির সভাপতি প্রকৌশলী মোঃ হেলাল উদ্দিন পাটোয়ারি ও সাধারণ সম্পাদক এ টি এম কামরুল হাসান, কর্মচারী সমিতির সভাপতি সাজেদুর রহমান জুয়েল ও সাধারণ সম্পাদক কে এম আরিফুজ্জামান সোহাগ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।


Leave a Reply



Nobobarta © 2020। about Contact PolicyAdvertisingOur Family
Design & Developed BY Nobobarta.com