ঘুরে আসুন ঘিওরের নৌকার হাট – Nobobarta

আজ রবিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৭:১৮ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
গোপালগঞ্জের মুকসুদপুর থেকে লাশ উদ্ধার সরকারি কর্মচারীদের জন্য নতুন নিয়ম জারি ভালুকায় বন বিভাগের জমি হতে কাটা শতাধিক কাঠ জব্দ রংপুরে দুুই সন্তানসহ অন্ত:সত্বা স্ত্রীকে হত্যা, স্বামী গ্রেফতার ইন্টারনেট থেকে মিথিলা ও ফাহমির ছবি সরাতে হাইকোর্টের নির্দেশ হলে দর্শক ফেরাতে সিনেমাকে ডিজিটালাইজড করতে হবে : প্রধানমন্ত্রী ভালুকা পাক হানাদার মুক্ত করতে স্বজন হারিয়েছি : এমপি কাজিম উদ্দিন আহাম্মেদ ধনু কোটালিপাড়ায় ৫০০ প্রতিবন্ধীর মাঝে কম্বল বিতরণ হয়রানী ও অফিস স্থানান্তর না করার দাবীতে লক্ষ্মীপুরে পল্লী বিদ্যুৎ গ্রাহদের মানববন্ধন রুম্পা হত্যা মামলায় রিমান্ডে ‘বয়ফ্রেন্ড’ সৈকত
ঘুরে আসুন ঘিওরের নৌকার হাট

ঘুরে আসুন ঘিওরের নৌকার হাট

বৃষ্টির দিনে গ্রামবাংলা বিশেষ করে হাওর অঞ্চলে যাতায়াত চলে নৌকাতেই। ঝড় হোক বা বৃষ্টি ছাতা মাথায় উঠে পড়তে হয় নৌকায়। হাওর পাড়ি দিতে ভরসা কেবলমাত্র নৌকাই। তাছাড়া যেসব এলাকার রাস্তাঘাট পানিতে তলিয়ে যায়, তাদেরও ভরসা শুধুই নৌকা। বর্ষাকালে মানিকগঞ্জের নিম্নাঞ্চল বিশেষ করে দৌলতপুর, ঘিওর, হরিরামপুর ও শিবালয় উপজেলার নদী তীরবর্তী গ্রামের চারপাশ পানিতে থৈ থৈ করে। তাইতো বর্ষার সময় প্রতিবছর মানিকগঞ্জের ঘিওরে নৌকার হাট বসে। পছন্দসই নৌকা কিনতে হাটে ভিড় জমায় লোকজন। তবে এ হাট দেখতে যাওয়া পর্যটকদের সংখ্যাও কম নয়।

একদিনে ঢাকার আশেপাশে যারা ঘুরতে চান, তাদের জন্য ঘিওর হতে পারে আদর্শ স্থান। এখানে এসে অন্তত স্বস্তির নিঃশ্বাস নিতে পারবেন। শত শত নৌকা দেখার পাশাপাশি সোঁদা মাটির স্বাদ আর একটু ঐতিহ্যের ছোঁয়া পাবেন। যা একঘেয়েমি ব্যস্ত জীবনের ক্লান্তি দূর করে দেবে অনেকটাই। প্রতি বুধবার ভোর থেকেই জেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে বিভিন্ন যানবাহন ও ইঞ্জিনচালিত ট্রলারে করে ব্যবসায়ীরা নৌকা নিয়ে হাটে আসেন। সে দৃশ্য নজর কাড়ে যে কারো।

ঘিওরের এই হাটের বয়স দুইশ’ বছরেরও বেশি। এক সময় এই হাটের ছিল ভরা যৌবন। দূর-দূরান্ত থেকে মানুষের পদচারণা আর কোলাহলের আওয়াজ মাইল কে মাইল দূর থেকে শোনা যেত। লোকজন তাদের সারা সপ্তাহের নিত্য প্রয়োজনীয় বাজার সদাই এই হাট থেকেই করে নিত। কলকাতার মহাজন দাদা বাবুরা এই হাট থেকে এই এলাকার বিখ্যাত হরেক রকমের ডাল পাইকারি কিনে নিয়ে গিয়ে সেখানকার বাজারে বিক্রি করতো।

গাবতলী থেকে যেকোনো বাসে মানিকগঞ্জ জেলার বরংগাইল বাসস্ট্যান্ড নেমে সিএনজি যোগে ঘিওর হাটে যেতে পারেন। সেখানকার সবচেয়ে আকর্ষণীয় এবং সুস্বাদু মজার খাবার নিজামের মিষ্টি। যার স্বাদ এক কথায় অতুলনীয়। যার দাম প্রকারভেদে ৩০০ থেকে ৪০০ টাকা কেজি এবং প্রতি পিস ৩০ টাকা করে।


Leave a Reply



Nobobarta © 2020। about Contact PolicyAdvertisingOur Family
Design & Developed BY Nobobarta.com