,

জাবির আন্ত:হল ফুটবল খেলা চলাকালে সংঘর্ষ: আহত ৭

জোবায়ের কামাল, জাবি প্রতিনিধি: জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) আন্ত:হল ফুটবল খেলায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে আল বেরুনী ও মীর মশাররফ হোসেন হলের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এতে সাতজন শিক্ষার্থী আহত হয়েছে।

বুধবার (০৬ ডিসেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে টুর্নামেন্টের দ্বিতীয় দিনে মীর মশাররফ হোসেন হল সাথে আল বেরুনী হলের খেলা চলাকালে এ ঘটনা ঘটে।

আহত শিক্ষার্থীদের মধ্যে জনি লাংবাং’র অবস্থা গুরুতর বলে জানা গেছে। এছাড়া সরকার ও রাজনীতি বিভাগের (৪৫তম ব্যাচ) এম এইচ হলের শিক্ষার্থী সালমান, নৃবিজ্ঞান বিভাগের (৪৩তম ব্যাচ) ফয়সাল, ইংরেজি বিভাগের (৪৬তম ব্যাচ) এনায়েত, আন্তর্জাতিক সম্পক বিভাগের (৪৩তম ব্যাচ) আল বেরুনী হলের আব্দুল্লহ আল মামুন ও জামশেদ আলম আহত হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানানা, মীর মশাররফ হোসেন হলের খেলোয়াড় সালমান শাহ (ইতিহাস-৪২) বল নিয়ে আক্রমনকালে জনি লাংবাংয়ের বাঁধার মুখে সালমান মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। রেফারী জনিকে হলুদ কার্ড দেখায়। এ সময় সালমান ইচ্ছাপূর্বক জনিকে লাথি দেয়। জনি তখন পাল্টা লাথি মারলে সংঘর্ষের সূত্রপাত হয়। পরে মীরশরাফ হোসেন হলের খোলোয়াড় মাসুম এগিয়ে এসে জনিকে ঘুষি মেরে মাটিতে ফেলে দেয়। বিষয়টি উভয় পক্ষের খেলোয়াড় ও দর্শকদের মধ্যে ছড়িয়ে পড়লে ব্যাপক সংঘর্ষে বাধে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের চিকিৎসা কেন্দ্রের ডা. শামছুল আলম লিটন বলেন, আহতদেরকে প্রাথমিকভাবে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেলে চিকিৎসা প্রদান করা হয়েছে। গুরুতর আহত হওয়ায় জনি লাংবাংকে সাভারের একটি বেসরকারী হাসপালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

খেলা পরিচালনা কমিটির সভাপতি অধ্যাপক কৌশিক সাহা বলেন, আমরা রেফারীর সাথে আলোচনা করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নিবো।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক তপন কুমার সাহা বলেন, মারধরের বিষয়টি আমরা তদন্ত করছি। তদন্ত শেষে প্রকৃত দোষীদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তিনি আরো বলেন, যে কোন ধরণের দুর্ঘটনা মোকাবেলা করতে প্রক্টরিয়াল বডি মাঠে তৎপর রয়েছে।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন

নববার্তা.কম এর সংবাদ পড়তে লাইক দিন নববার্তা এর ফেসবুক ফান পেজে

আরও অন্যান্য সংবাদ


Udoy Samaj

টুইটর




Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com