সোমবার, ১৫ অক্টোবর ২০১৮, ১১:১৯ অপরাহ্ন

English Version
শেষ হল জাবির উৎসবমুখর প্রজাপতি মেলা

শেষ হল জাবির উৎসবমুখর প্রজাপতি মেলা



  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

জোবায়ের কামাল, জাবি প্রতিনিধি# ‘উড়লে আকাশে প্রজাপতি, প্রকৃতি পায় নতুন গতি’- স্লোগানে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) প্রাণিবিদ্যা বিভাগের আয়োজনে অষ্টমবারের মতো দিনব্যাপী প্রজাপতি মেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

 

শনিবার (০৪ নভেম্বর) সকাল ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের জহির রায়হান মিলনায়তনের সামনে এ মেলা উদ্ধোধন করেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. ফারজানা ইসলাম।

উদ্বোধনী বক্তব্যে প্রজাপতি মেলার আয়োজক ও প্রজাপতি প্রেমীদের ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি বলেন, ‘প্রজাপতির সঙ্গে প্রকৃতির কি সম্পর্ক, পরাগায়নে প্রজাপতি কি সাহায্য করে তা আমরা এ প্রজাপতি মেলার মাধ্যমে জানতে পারছি। এ মেলার কারণে প্রজাপতি ও প্রজাপতির উপকার সম্পর্কে মানুষের মধ্যে জানার আগ্রহ তৈরি হচ্ছে।’

 

এসময় প্রজাপতির চোখ এবং কালার ভিশনের গবেষণায় সার্বিক অবদানের জন্য জাপানের প্রাজুয়েট ইউনিভার্সিটি ফর অ্যাডভান্সড স্টাডিজের অধ্যাপক কেনটারো আরিকাওয়াকে ‘বাটারফ্লাই অ্যাওয়ার্ড-২০১৭’দেওয়া হয়।

 

এছাড়া মেলায় ‘ইয়াং বাটারফ্লাই এনথ্যুসিয়াস্ট অ্যাওয়ার্ড’ দেওয়া হয় জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যায়ের লোক প্রশাসনের শিক্ষার্থী আফলাতুন কায়সারকে।

 

এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক  শেখ মো. মনজুরুল হক, আইইউসিএন’র (ইন্টারন্যাশনাল ইউনিয়ন ফর কনজারভেশন অব ন্যাচার) বাংলাদেশ প্রতিনিধি ইশতিয়াক উদ্দিন আহমেদ প্রমুখ।

 

দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে দর্শনার্থীরা মেলায় ভিড় জমিয়েছেন। এছাড়া ঢাকা ও আশপাশের অনেক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে শিক্ষার্থীরা দল বেধে এসেছে প্রজাপতি মেলায়। জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে প্রজাপতি মেলা দেখতে এসে এহসানুল মাহবুব বলেন, ‘এই মেলার মাধ্যমে প্রজাপতিকে নতুনভাবে চিনার সুযোগ হয়েছে। প্লেন টাইগার, কমন ক্রো, প্লেম জুডি, ডিঙ্গি বুশব্রাউন, কমন ডাফার, এপফ্লাই, পি বু’সহ শতাধিক প্রজাতির সাথে পরিচিত হতে পারছি।’

মেলার আহ্বায়ক ও প্রাণিবিদ্যা বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক ড. মো. মনোয়ার হোসেন তুহিন গতকাল বুধবার বলেন, ‘প্রকৃতি ও প্রজাপতি সংরক্ষণে গণসচেতনতা বাড়ানোর লক্ষ্যে ২০১০ সাল থেকে ধারাবাহিকভাবে প্রতিবছরের মতো এবারও এই মেলার আয়োজন করেছি।’

এবারের মেলায় দিনব্যাপী আয়োজনের মধ্যে ছিল র‌্যালি, প্রজাপতি বিষয়ক ছবি আঁকা প্রতিযোগিতা (শিশু-কিশোরদের জন্য), প্রজাপতির আলোকচিত্র প্রদর্শনী, প্রজাপতি বিষয়ক আলোকচিত্র প্রতিযোগিতা, হাট দর্শন (জীবন্ত প্রজাপতি প্রদর্শন), অরিগামি প্রজাপতি, প্রজাপতির আদলে ঘুড়ি উড্ডয়ন, বারোয়ারী বিতর্ক (প্রজাপতি ও জলবায়ু পরিবর্তন), প্রজাপতি চেনা প্রতিযোগিতা, প্রজাপতি বিষয়ক ডকুমেন্টারি প্রদর্শনী।

লাইক দিন

Please Share This Post in Your Social Media




Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.



© 2018 Nobobarta । Privacy PolicyAbout usContact DMCA.com Protection Status
Design & Developed BY Nobobarta.com