জাতীয় পার্টি নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত -হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ

স্টাফ রিপোর্টার: জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছেন, ২৪ মার্চ ঢাকায় মহাসমাবেশের তারিখ ঘোষণা করেছি। ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য দলীয় শক্তি প্রয়োজন। আমরা দেখাতে চাই জাতীয় পার্টি কতটা শক্তি সঞ্চয় করেছে। আগামীতে আমরা জনগণের রায় নিয়ে এককভাবে ক্ষমতায় যেতে চাই। আমাদের মূল লক্ষ্য হবে মহাসমাবেশের মাধ্যমে দেশের মানুষকে দেখানো, আমরা নির্বাচন করে ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য প্রস্তুত।
হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেন, সুষ্ঠ, অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচনেই গণতন্ত্রের মুলতন্ত্র। আর নির্বাচন ছাড়া সরকার পরিবর্তন সম্ভব নয়। কে নির্বাচনে এলো বা’ না এলো’ তাতে আমার কিছু আসে যায় না। জাতীয় পার্টি নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত। জাতীয় পার্টির শাসনামলে যে উন্নয়ন হয়েছে, তা বিএনপি-আওয়ামী লীগ মিলেও করতে পারেনি।

জাতীয় পার্টিকে আরো শক্তিশালী করার জন্য নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ হয়ে সাংগঠনিক কাজে ঝাঁপিয়ে পড়ার আহবান জানান দলটির চেয়ারম্যান। দলকে শক্তিশালী করতে পারলে জাতীয় পার্টি ক্ষমতার দুয়ারে পৌঁছাবো বলেও উলে­খ করেন সাবেক এই রাষ্ট্রপতি।

শনিবার দুপুরে বগুড়ার বানানী পর্যটন মোটেল অডিটরিয়ামে রংপুর ও রাজশাহী বিভাগীয় জাপার সমন্বয় প্রতিনিধি সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

২৪ মার্চ ঢাকার ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মহাসমাবেশ সফল করার লক্ষ্যে দুই বিভাগের যৌথ এই প্রতিনিধি সভায় সভাপতিত্ব করেন জাতীয় পার্টির মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদার এমপি।

তিনি বলেন, এক দল ক্ষমতায় থাকায় মানুষ লাশ হয়েছে আর এক দলের ক্ষমতা থাকায় হচ্ছে হত্যা, গুম, নারী ধর্ষণ, সাংবাদিক নির্যাতন, মারামারি-হানাহানি। ইতিহাস কাউকে ক্ষমা করে না। দু’দলের ক্ষমতায় থাকা আর ক্ষমতায় যাওয়া নিয়ে নিরাপত্তাহীনতা ও সংশয় দেখা দিয়েছে। জনগণের মনে এরশাদ সরকারের স্বর্ণালি যুগের কথা বারবার স্মরণ করিয়ে দেয়। জাতীয় পার্টির ওপর মানুষের আস্থা বেড়ে গেছে। নির্বাচনের প্রস্তুতির অংশ হিসেবেই ২৪ মার্চ ঢাকায় মহাসমাবেশ। এটি হবে স্মরণকালের বৃহত্তম সমাবেশ।
জাপা মহাসচিব আরও বলেন, আগামী নির্বাচনে জাতীয় পার্টি তিনশ’ আসনে মনোনয়ন দিয়ে গণবিপ্লব ঘটাবে। গণতন্ত্রকে প্রাতিষ্ঠানিক রুপ দেয়ার জন্য জাতীয় পার্টি’র কোনো বিকল্প নেই। ষড়যন্ত্র ও মিথ্যা মামলা দিয়ে সাবেক প্রেসিডেন্ট এরশাদকে স্তব্ধ করা যাবে না।

জাতীয় পার্টির যুগ্ম মহাসচিব ও জাতীয় সংসদের বিরোধী দলীয় হুইপ নুরুল ইসলাম ওমর এমপির সঞ্চালনায় দুই বিভাগের সমন্বয় প্রতিনিধি সভায় বক্তব্য দেন, জাপার প্রেসিডিয়াম সদস্য সাবেক মন্ত্রী কাজী ফিরোজ রশীদ, এলজিআরডি প্রতিমন্ত্রী মশিউর রহমান রাঙ্গা, জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু, মেজর অবসরপ্রাপ্ত খালেদ আকতার, মজিবুর রহমান সেন্টু, শরিফুল ইসলাম জিন্নাহ।

উপস্থিত ছিলেন, কেন্দ্রীয় নেতা মকবুল হোসেন সনটু, শাহীন মোস্তফা ফারুক, আমিনুল ইসলাম ঝন্টু, আব্দুস সালাম বাবু, এ্যাডভোকেট তোফাজ্জল হোসেন, অধ্যক্ষ মোকছেদুল বারী, শাহাবুদ্দিন বাচ্চু, তিতাস মোস্তফা, আলহাজ্ব দেলোয়ার হোসেন, সোলায়মান সামিসহ কেন্দ্রীয়, রাজশাহী ও রংপুর বিভাগের মহানগর, জেলা-উপজেলা এবং পৌর কমিটির সভাপতি-সম্পাদকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন

নববার্তা.কম এর সংবাদ পড়তে লাইক দিন নববার্তা এর ফেসবুক ফান পেজে

আরও অন্যান্য সংবাদ




টুইটর




Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com