শেষ হলো প্রথম পর্বের আখেরি মোনাজাত - Nobobarta.com

শেষ হলো প্রথম পর্বের আখেরি মোনাজাত

দেশ ও মুসলিম উম্মাহর শান্তি কামনা করে আখেরী মোনাজাতের মাধ্যমে শেষ হলো ৫৩ তম বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব। এবারই বাংলায় আখেরি মোনাজাত করা হয়েছে। প্রথমে আরবিতে মোনাজাত শুরু হলেও একপর্যায়ে এখানে অংশগ্রহণকারী লাখো মুসল্লির প্রাণের ভাষা বাংলায় ‘হে আল্লাহ, আমাদের ক্ষমা করে দিন’ ধ্বনিতে মুখরিত হয়ে উঠে ইজতেমার ময়দান। গণভবন থেকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মোনাজাতে অংশ নিয়েছেন। রোববার সকাল সাড়ে দশটার দিকে আখেরি মোনাজাত শুরু হয়ে শেষ হয় সোয়া ১১ টর দিকে। ইজতেমার দ্বিতীয় পর্ব শুরু হবে ১৯ জানুয়ারি।

রোববার ভোরে সূর্য ওঠার আগেই ইজতেমা মাঠে দলে দলে আসতে থাকেন মুসল্লিরা। তবে বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ভিড় বাড়তে থাকলেও মোনাজাত উপলক্ষে ভোর থেকেই মহাখালী-টঙ্গী-গাজীপুর রুটে সকল যান চলাচল বন্ধ করে দেয় পুলিশ। এছাড়া এ উপলক্ষে নেওয়া হয় অতিরিক্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা। অন্য দিনের চেয়ে নিরাপত্তায় মোতায়েন করা হয় আইন-শৃংখলা বাহিনীর প্রায় দ্বিগুণ সদস্য। মোনাজাতে অংশ নেয়া এবং মোনাজাত শেষে ফিরে যাওয়ার বিশেষ ট্রেন ও বাসের ব্যবস্থা করা করেছে বাংলাদেশ রেলওয়ে এবং বিআরটিসি।

ভারতের মাওলানা মোহাম্মদ সাদ কান্ধলভি কয়েক বছর ধরে ইজতেমায় আখেরি মোনাজাত পরিচালনা করছিলেন হিন্দি ভাষায়। তবে এবার তিনি না থাকায় তাঁর পরিবর্তে বাংলাদেশের কাকরাইল মসজিদের ইমাম হজরত মাওলানা যোবায়ের হাসান বাংলা ভাষায় আখেরি মোনাজাত পরিচালনা করবেন বলে ইজতেমা সূত্রে জানা গেছে। বেলা ১১টার দিকে আখেরি মোনাজাত অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছেন ইজতেমার শীর্ষস্থানীয় মুরুব্বিরা। এদিকে নানা বিতর্কের অবসান ঘটাতে মাওলানা সাদ এবারের বিশ্ব ইজতেমায় অংশ না নিয়ে ফিরে যাওয়ায় তাঁর অনুপস্থিতি স্বাভাবিকভাবে মেনে নিতে পারছেন না তাঁর অনুসারীরা। তাই অর্ধশতাধিক বিদেশি মুসল্লি ইজতেমার প্রথম পর্ব সম্পন্ন হওয়ার আগেই ময়দান থেকে চলে গেছেন। আগামী বছর বিশ্ব ইজতেমা অনুষ্ঠিত হবে ১১ জানুয়ারি থেকে।

দেশ-বিদেশের লাখ লাখ মুসল্লির পদচারণায় টঙ্গীর তুরাগ পাড়ের বিশ্ব ইজতেমাস্থল এখন মুখর। শিল্প নগরী টঙ্গী এখন যেন ধর্মীয় নগরীতে পরিণত হয়েছে। এবারের ইজতেমার প্রথম পর্বের দ্বিতীয় দিন শনিবার আল্লাহ প্রদত্ত বিধি-বিধান ও মহানবী হজরত মুহাম্মদ (সা.) প্রদর্শিত তরিকা অনুযায়ী জীবন গড়ার আহ্বান জানিয়ে দেশ-বিদেশের লাখ লাখ ধর্মপ্রাণ মুসল্লি জিকির-আসকার, ইবাদত বন্দেগী আর ধর্মীয় ভাবগম্ভীর পরিবেশে পবিত্র কোরআনের আলোকে গুরুত্বপূর্ণ বয়ানের মধ্য দিয়ে অতিবাহিত করেছে। আজ রোববার আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হবে মুসলিম বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম জমায়েত এবারের ৫৩তম বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব।

বাংলাদেশ রেলওয়ের পক্ষ থেকে আখেরি মোনাজাত উপলক্ষে আখাউড়া, কুমিল্লা ও ময়মনসিংহসহ বিভিন্ন রুটে প্রায় ২১টি বিশেষ ট্রেনের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এছাড়া আখেরি মোনাজাতের আগে ও পরে সব ট্রেন টঙ্গী স্টেশনে যাত্রা বিরতি করবে। টঙ্গী রেলওয়ে জংশন সূত্রে জানা গেছে, রোববার আখেরি মোনাজাতের দিন জামালপুর-টঙ্গী একটি, আখাউড়া-টঙ্গী একটি, টঙ্গী-ময়মনসিংহ, লাকসাম-টঙ্গী রুটে বিশেষ ট্রেন যাতায়াত করবে। এছাড়াও আখেরি মোনাজাতের আগে-পরে সব ট্রেন টঙ্গী স্টেশনে যাত্রা বিরতি করবে বলে জানিয়েছেন টঙ্গীর রেলওয়ে স্টেশনের কর্মকর্তা। ঢাকা বিভাগীয় রেলওয়ে ব্যবস্থাপক মো. গাউস আল মুনির জানান, বিশ্ব ইজতেমা চলাকালে বিশেষ ট্রেন চালু হয়েছে। প্রতিটি ট্রেন টঙ্গী রেলওয়ে জংশনে দুই মিনিট করে যাত্রা বিরতি করবে।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন

নববার্তা.কম এর সংবাদ পড়তে লাইক দিন নববার্তা এর ফেসবুক ফান পেজে

আরও অন্যান্য সংবাদ




টুইটর




Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com