,

কর্মকর্তাদের খুশি করতে নার্সদের ‘অশ্লীল’ নাচ! (ভিডিও)

দক্ষিণ কোরিয়ার একটি হাসপাতালের নার্সদের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের খুশি করতে ‘অশ্লীল ভঙ্গিতে’ নাচতে হয়েছে, আমরা জানি, হাসপাতালের নার্সদের কাজ রোগীদের সেবাশুশ্রূষা করা। কিন্তু হাসপাতালের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের কারণে নাচতে হলো নার্সদের! ব্রিটিশ গণমাধ্যম মিরর ও ডেইলি মেইলের খবরে বলা হয়েছে, হাসপাতালের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের খুশি করতে নাচতে হয়েছে নার্সদের। দক্ষিণ কোরিয়ার একটি হাসপাতালের পদস্থ কর্মকর্তাদের খুশি করতে যৌন উত্তেজনাপূর্ণ অঙ্গভঙ্গি করেই নাচতে হয় নার্সদের। সেই ভিডিও প্রকাশ্যে আসার পরই শোরগোল পড়ে যায়।

গত বছর অক্টোবরে হল্লাম ইউনিভার্সিটি স্যাকরেড হার্ট হসপিটাল নামের একটি হাসপাতালের এক অনুষ্ঠানে শর্ট স্কার্ট, ছোট প্যান্ট, টিউব টপের মতো বিভিন্ন ধরনের পোশাক পরে ওই নার্সদের নাচতে বলা হয়। বিষয়টি নিয়ে প্রথমে চুপ থাকলেও পরে একজন নার্স এর ভিডিও ফুটেজ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট করেন। এরপরই দ্রুত ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে। তবে এটা প্রথমবার নয়, এর আগেও একাধিকবার নার্সদের এ ধরনের পোশাক পরেই নাচতে বাধ্য করা হয় বলে অভিযোগ রয়েছে।

শুধু হাসপাতালের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের সামনেই নয়, হাসপাতালে ভর্তি হওয়া রোগী ও তাঁদের স্বজনদের সামনেও তাঁদের ‘অশ্লীল অঙ্গভঙ্গি’ করে নার্সদের নাচতে হয়েছে। সামাজিক মাধ্যমে ভাইরাল হওয়ার পরই ঘটনা তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে দেশটির প্রশাসনের পক্ষ থেকে। যে নার্স এই ভিডিও ফুটেজ ছেড়েছেন, তিনি মিররকে বলেন, ‘এটাই প্রথমবার নয়। এর আগেও নার্সদের ‘আবেদনময়ী’ ভঙ্গিতে নাচতে বলা হয়েছে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ নাচে অংশ নিতে বলে মূলত চাকরিতে আসা নতুনদের। কারণ, তারা এটা প্রত্যাখ্যান করতে পারেন না।’ তিনি বলেন, ‘আমাদের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের সামনে নাচতে বাধ্য করা হয়।’

নার্সদের দুই থেকে তিন ঘণ্টা পর্যন্ত মঞ্চে নাচতে বাধ্য করা হয়। এমনকি গর্ভবতী হওয়া সত্ত্বেও একজন নার্সকেও ছোট পোশাক পরে অশ্লীল ভঙ্গিতে নাচতে হয়েছে। কিন্তু চাকরি হারানোর ভয়ে ওই নার্স কিছুই বলতে পারেননি। কোরিয়া টাইমসের বরাত দিয়ে মিররের খবরে বলা হয়েছে, নার্সদের সঙ্গে এমন আচরণের ঘটনা তদন্ত করছে কোরিয়ান নার্সেস অ্যাসোসিয়েশন। নাচে অংশ নেওয়া অপর একজন সেবিকা বলেন, নাচার সময় নিজেকে কীভাবে আবেদনময়ী ও আকর্ষণীয়ভাবে তুলে ধরা যায়, একজন উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা সে ব্যাপারে নির্দেশনা দেন।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন

নববার্তা.কম এর সংবাদ পড়তে লাইক দিন নববার্তা এর ফেসবুক ফান পেজে

আরও অন্যান্য সংবাদ


Udoy Samaj

টুইটর




Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com