,

পৌরসভা নির্বাচন নিয়ে বিএনপি-আওয়ামী লীগের পাল্টাপাল্টি হুঁশিয়ারি

পৌরসভা নির্বাচন সুষ্ঠু না হলে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার ডাকে আন্দোলন গড়ে তোলা হবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন দলের ভাইস চেয়ারম্যান মেজর (অব.) হাফিজ উদ্দিন আহমেদ বীরবিক্রম। আজ(রোববার) সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবে অল কমিউনিটি ফোরাম নামক একটি সংগঠনের নেতৃত্বে “পৌর নির্বাচনে সরকারের ভূমিকা ও ইসির পদক্ষেপ” শীর্ষক আলোচনা সভায় এ হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন তিনি। হাফিজ উদ্দিন আহমেদ বলেন, “পৌর নির্বাচন দিয়ে সরকার পরিবর্তন হবে না। তাহলে সরকার কেন উদার হতে পারে না? গণতন্ত্র রক্ষার জন্য সুষ্ঠু নির্বাচন করবে সরকার- এটাই আমাদের প্রত্যাশা।“

 

তিনি আরও বলেন, “সরকার নির্বাচনে কারচুপি করার জন্য মুখিয়ে আছে। একটি নীল নকশার নির্বাচনের ষড়যন্ত্র করছে। নির্বাচন কমিশনকে বলব, মেরুদণ্ড সোজা করে দাঁড়ান। যারা নির্বাচনে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে তাদের বিরুদ্ধে শাস্তির ব্যবস্থা করেন। বল প্রয়োগ করে কেউ যাতে নির্বাচিত হতে না পারে।“ তিনি বলেন, “জনগণ যদি ভোটকেন্দ্রে যেতে না পারে তাহলে নির্বাচনের ব্যবস্থা করে লাভ কী? শুধু শুধু ২০ দলের নেতাকর্মীদের জীবন নাশ করা হচ্ছে। বিএনপির প্রার্থীরা মাঠে নামতে পারছে না। হামলা-মামলা করে নেতাকর্মীদের কারাগারে নেয়া হচ্ছে। ভয়ভীতি দেখানো হচ্ছে। একজন কাউন্সিলরের মাকে অন্য কাউন্সিলর মেরে ফেলেছে।“

 

ওদিকে, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া হুঁশিয়ারী দিয়েছেন, পৌর নির্বাচন নিয়ে বিএনপি কোন ষড়যন্ত্র করলে দাঁত ভাঙ্গা জবাব দেয়া হবে। রোববার দুপুরে চাঁদপুর শহরে জেলা মুক্তিযোদ্ধা ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন অনুষ্ঠানে মন্ত্রী বলেন, পৌর নির্বাচনে জনগণ যাকে খুশি তাকে ভোট দেবে। সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ ও সুন্দরভাবে পৌর নির্বাচন হবে। এর পর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন হবে। ২০১৮ সালের শেষে হবে সংসদ নির্বাচন। আর ওই নির্বাচনও হবে বর্তমান সরকারের অধীনেই । এবারের পৌর নির্বাচন অনুষ্ঠান নিয়ে বিএনপি ছাড়াও অন্যান্য রাজনৈতিক দলও নির্বাচন কমিশনের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন।

 

এ প্রসঙ্গে সিপিবি’র কেন্দ্রীয় নেতা রূহীন হোসেন প্রিন্স বলেন, কমিশন দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন করছে না; এখনো জনগনের আস্থা অর্জন করতে পারে নি। তিনি বলেন, এবার প্রথম রাজনৈতিক দলের প্রতীক নিয়ে নির্বাচন হচ্ছে কিন্তু কমিশনের প্রস্তুতি আনেকটা দায়সারা গোছের। এ প্রসঙ্গে নির্বাচন পর্যবেক্ষনকারী বেসরকারী সংস্থা জানিপপ চেয়ারম্যান ড: নাজমুল আহসান কলিমুল্লাহ বলেন, রাজনৈতিক প্রতীকের নির্বাচনের ব্যাপারটি এখনো ‘ না ঘরকা না ঘাটকা’ অবস্থায় রয়েছে। এদিকে, আসন্ন পৌর নির্বাচনে ২০দলীয় জোট সমর্থিত প্রার্থীদের পক্ষে সক্রিয় থাকার জন্য পেশাজীবী নেতাদের তাগিদ দিয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া।

 

শনিবার রাতে চেয়ারপারসনের গুলশানের কার্যালয়ে পেশাজীবী নেতাদের নিয়ে রুদ্ধধার বৈঠক করেন বিএনপি চেয়ারপারসন। সভাসূত্রে জানান গেছে, বেগম জিয়া পেশাজীবী নেতাদের বলেছেন, আওয়ামী লীগ সরকারে থাকলে কখনোই নির্বাচন সুষ্ঠু হবে না। বিএনপি কেন আওয়ামী লীগের অধীনে নির্বাচনে যাবে না তার প্রমাণ এই পৌর নির্বাচনেও হবে। আর সুষ্ঠু নির্বাচন হলে ২০ দলের প্রার্থীরা জয়ী হবে। আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনে ফলাফলে যাতে কারচুপি না হয় এজন্য স্ব স্ব স্থান থেকে বিভিন্ন পেশাজীবী সংগঠনের নেতাদেরকে সজাগ থাকার আহ্বান জানান খালেদা জিয়া। এ ছাড়া, পৌর নির্বাচন পর্যবেক্ষণের জন্য কেন্দ্রীয় নেতাদের প্রধান করে বেশ কয়েকটি টিমের পাশপাশি পৃথক বিশেষ “মনিটরিং সেল” খুলেছে বিএনপি। রাজধানীর গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয় থেকে এটি নিয়ন্ত্রণ করা হবে।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন

নববার্তা.কম এর সংবাদ পড়তে লাইক দিন নববার্তা এর ফেসবুক ফান পেজে

আরও অন্যান্য সংবাদ


Udoy Samaj

টুইটর




Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com